Category: ইতিহাস নির্ভর কবিতা

কবর

এইখানে তোর দাদীর কবর ডালিম গাছের তলে, তিরিশ বছর ভিজায়ে রেখেছি দুই নয়নের জলে। এতটুকু তারে ঘরে এনেছিনু সোনার মতন মুখ, পুতুলের বিয়ে ভেঙে গেল বলে কেঁদে ভাসাইত বুক। এখানে…

নক্‌শী কাঁথার মাঠ

এক। বন্ধুর বাড়ি আমার বাড়ি মধ্যে ক্ষীর নদী, উইড়া যাওয়ার সাধ ছিল, পাঙ্খা দেয় নাই বিধি। — রাখালী গান এই এক গাঁও, ওই এক গাঁও — মধ্যে ধু ধু মাঠ,…

তোমাকে পাওয়ার জন্যে, হে স্বাধীনতা

তোমাকে পাওয়ার জন্যে, হে স্বাধীনতা, তোমাকে পাওয়ার জন্যে আর কতবার ভাসতে হবে রক্তগঙ্গায়? আর কতবার দেখতে হবে খাণ্ডবদাহন? তুমি আসবে ব’লে, হে স্বাধীনতা, সাকিনা বিবির কপাল ভাঙলো, সিঁথির সিঁদুর মুছে…

স্বাধীনতা তুমি

স্বাধীনতা তুমি রবিঠাকুরের অজর কবিতা, অবিনাশী গান। স্বাধীনতা তুমি কাজী নজরুল, ঝাঁকড়া চুলের বাবরি দোলানো মহান পুরুষ, সৃষ্টিসুখের উল্লাসে কাঁপা- স্বাধীনতা তুমি শহীদ মিনারে অমর একুশে ফেব্রুয়ারির উজ্জ্বল সভা, স্বাধীনতা…

পৃথিবী

______ আজ আমার প্রণতি গ্রহণ করো, পৃথিবী, ________ শেষ নমস্কারে অবনত দিনাবসানের বেদিতলে। ___ মহাবীর্যবতী , তুমি বীরভোগ্যা, ______ বিপরীত তুমি ললিতে কঠোরে, ________ মিশ্রিত তোমার প্রকৃতি পুরুষে নারীতে ;…

আমার বন্ধু নিরঞ্জন

অনেক কথা বলবার আছে আমার তবে সবার আগে নিরঞ্জনের কথা বলতে হবে আমাকে নিরঞ্জন আমার বন্ধুর নাম, আর কোন নাম ছিল কি তার? আমি জানতাম না। ওর একজন বান্ধবী ছিল,…

তুমি বলেছিলে

দাউ দাউ পুড়ে যাচ্ছে নতুন বাজার। পুড়ছে দোকান-পাট, কাঠ, লোহা-লক্কড়ের স্তূপ, মসজিদ এবং মন্দির। দাউ দাউ পুড়ে যাচ্ছে নতুন বাজার। বিষম পুড়ছে চতুর্দিকে ঘর-বাড়ি। পুড়ছে টিয়ের খাঁচা, রবীন্দ্র রচনাবলি, মিষ্টান্ন…

কাঁদতে আসিনি ফাঁসির দাবী নিয়ে এসেছি

রমনার মাঠের সেই মাটিতে কৃষ্ণচুড়ার অসংখ্য ঝরা পাপড়ির মতো চল্লিশটি তাজা প্রাণ আর অংকুরিত বীজের খোসার মধ্যে আমি দেখতে পাচ্ছি তাদের প্রতিটি রক্তকণা রমনার সবুজ ঘাসের উপর আগুনের মতো জ্বলছে,…

একুশে ফেব্র্রুয়ারী

আমার ভাইয়ের রক্তে রাঙানো একুশে ফেব্র্রুয়ারি আমি কি ভুলিতে পারি। ছেলেহারা শত মায়ের অশ্রু গড়া এ ফেব্র্রুয়ারি আমি কি ভুলিতে পারি। আমার সোনার দেশের রক্তে জাগালো ফেব্র্রুয়ারি আমি কি ভুলিতে…

নূরলদীনের সারাজীবন (প্রস্তাবনা)

নীলক্ষা আকাশ নীল, হাজার হাজার তারা ঐ নীলে অগণিত আর নিচে গ্রাম, গঞ্জ, হাট, জনপদ, লোকালয় আছে ঊনসত্তর হাজার। ধবলদুধের মতো জ্যোৎস্না তার ঢালিতেছে চাঁদ – পূর্ণিমার। নষ্ট খেত, নষ্ট…