অনেকদিন তোমার প্রতীক্ষায় আছি,
চাতকের মতো পথ পানে চেয়ে,
মুক্তির আশায়।
আচ্ছা তোমার মনে আছে,
আমাদের ছোট ছোট স্বপ্ন গুঁটি গুঁটি পায়ে,
গোলাপের নেশাতুর নির্যাস মেখে
নিয়ন আলোয় মোড়া রাজপথে
হেঁটেছে বহুদূর অবিশ্রান্তভাবে,
পৃথিবীর পথে পথে।
লজ্জামাখা চোখ, পদ্মফোটা হাসি
আমি এখনো খুঁজে বেড়াই আমার পৃথিবীতে।
মনে আছে, তুমি যখন আমায় দুঃখ দিতে,
মেঘমল্লার সিংহনাদে আছড়ে পড়ত পৃথিবীতে।
অবশ্য সেজন্য তুমি আমাকে ডাকতে ‘মেঘ’ বলে।
আর আমি তোমার নাম দিয়েছিলাম ‘বিজলি’
মেঘের মধ্যে বিজলি আলো ফুটিয়ে হাসে।
এখন মেঘ তার নিজের আকাশেই ওড়ে,
খুঁজে বেড়ায় তার বিজলিকে।
বাতিকগ্রস্ত জীবনের নিভে যাওয়া বাতিঘরকে কেন্দ্র করে
বয়ে যায় সময়, বয়ে যায় মেঘ।
হয়তো এটাই মেঘের ইতিকথা।

Loading

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *